in

ট্রোলকারিরা যাই বলুক, প্রিয়াঙ্কাকে ট্রল করায় উনার মা গর্ভীত!!!

http://এরকম%20একটি%20বিতর্ক%20মূলক%20খোলা%20%20পোশাক%20একমাত্র%20প্রিয়াঙ্কা%20ই%20পরার%20সাহস%20রাখেন%20!%20
http://জামাটির%20খোলা%20অংশ%20ঢেকে%20দিয়ে%20ট্ররোল%20কারিরা%20লিখেছেন%20!%20"নিন,%20এমরা%20ঠিক%20ক্রে%20দিলাম%20"%20।

জামাটির খোলা অংশ এডিট করে ঢেকে দিয়ে ট্রল কারিরা লেখে দেন “নিন আমরা ঠিক করে দিলাম” 

গ্র্যামি অ্যাওয়ার্ডের রেডকার্পেটে প্রিয়াঙ্কা চোপড়ার রল্ফ অ্যান্ড রসো-র লো কাট সাদা গাউন সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে রীতিমতো সমালোচনার ঝড় তুলেছে। এই বলিউড সুন্দরী ফ্যাশনপ্রেমীদের মন জয় করলেও ভক্তদের অনেকেই তাঁকে কটাক্ষ করেছেন। 

প্রিয়াঙ্কার এই সাহসী পোশাককে ঘিরে ছুড়ে দেওয়া হচ্ছে নানান কটূক্তি।

তবে মেয়ের ঢাল হয়ে হাজির হয়েছেন মা। সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে এই সব ট্রলকারীকে জবাব দিতে এগিয়ে এসেছেন স্বয়ং মধু চোপড়া। সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে মেয়ের হয়ে সাফাই গেয়েছেন তিনি।

 লিখেছেন, ‘প্রিয়াঙ্কাকে ট্রল করার জন্য আমি অত্যন্ত খুশি। আমি মনে করি, এই সমালোচকেরা ওকে আরও শক্তিশালী করে তুলেছে। ও নিজের খুশিমতো নিজের জীবনকে উপভোগ করতে জানে। প্রিয়াঙ্কা কারও মনে আঘাত দিয়ে কথা বলে না। এটা ওর শরীর, ওর যা ইচ্ছা তা–ই করতে পারে। আর ওর শরীর সত্যিই সুন্দর।’

প্রিয়াঙ্কার পোশাককে ঘিরে সমালোচনা নতুন কথা নয়। এর আগেও একাধিকবার এই সাবেক বিশ্বসুন্দরী নানাভাবে ট্রল হয়েছেন। তবে এবার প্রিয়াঙ্কার সাহসী পোশাককে ঘিরে সমালোচনা তুঙ্গে। 

খোলামেলা এবং হলিউড অভিনেত্রী জেনিফার লোপেজের মতো করে পোশাক পরেছেন বলে বিতর্কের মুখে পড়েন। একদল জামার খোলা অংশ এডিট করে ঢেকে দিয়ে সেই ছবি পোস্ট করে লিখেছেন, ‘নিন, আমরা ঠিক করে দিলাম।

’একজন লিখেছেন, ‘হলিউডে সুযোগ পাওয়ার জন্য পোশাক ছাড়াও ঘুরতে পারেন প্রিয়াঙ্কা।’

তবে যে যা-ই বলুক, প্রিয়াঙ্কার এই সাহসী পদক্ষেপকে ঘিরে গর্বিত মা মধু। আর তিনি গর্বিত যে তাঁর মেয়ে নিজের ইচ্ছানুসারে জীবন যাপন করে। মধু প্রিয়াঙ্কাকে ট্রল হওয়া তাঁর একটি ছবি পাঠিয়েছিলেন।

 ছবিটি ঘিরে প্রিয়াঙ্কা মন্তব্য করেন, ‘এটা আমার জীবন। আমি নিজের জীবনে বাঁচি। আমার জীবন ট্রলকারীদের নয়। তাঁদের খুশিমতো আমি জামা পরতে পারব না। আমি আমার জীবনের সঙ্গে যা ইচ্ছা তা–ই করতে পারি।’

গ্র্যামি অ্যাওয়ার্ডের আগে প্রিয়াঙ্কা তাঁর সাদা লো কাট গাউনটি পরে মাকে দেখিয়েছিলেন। মা মধু চোপড়ার মনে হয়েছিল, এই ধরনের পোশাক পরা প্রিয়াঙ্কার জন্য ঝুঁকিপূর্ণ হতে পারে। 

তবে তিনি এ–ও বলেছিলেন, এই পোশাকে প্রিয়াঙ্কাকে খুব সুন্দর মানিয়েছে। এ প্রসঙ্গে তিনি বলেন, ‘প্রিয়াঙ্কাকে এই পোশাকে আমার দারুণ লেগেছিল। ও আমাকে পোশাক পরে আগে দেখিয়েছিল। প্রথমে মনে হয়েছিল, এটা ওর জন্য ঝুঁকি হতে পারে। তবে ওকে খুব সুন্দর লাগছিল। এবারের গ্র্যামিতে প্রিয়াঙ্কাই সবচেয়ে সুন্দর পোশাকের তারকা ছিল।’

প্রিয়াঙ্কার এই সাহসী পোশাককে ঘিরে এক প্রখ্যাত ডিজাইনার তাঁকে রীতিমতো আক্রমণ করেছেন। অন্যদিকে অভিনেত্রী সুচিত্রা কৃষ্ণমূর্তিসহ আরও অনেক তারকা প্রিয়াঙ্কার পক্ষে দাঁড়িয়েছেন। 

তবে মধুর জবাব আপাতত ট্রলকারীদের মুখ বন্ধ রাখার জন্য যথেষ্ট।

This post was created with our nice and easy submission form. Create your post!

What do you think?

Written by Sultana

বাঙালীর বিয়ের যত কথা।

বিশ্বের নামিদামি তারকাদের মজার মজার সব ছবি।